নির্বাচনে কম ভোটার, অনিয়ম, অভিযোগ, উৎকণ্ঠা নিয়ে শেষ হলো ভোট

112
নিউজ২১ডেস্কঃ সারাদেশে কম ভোটার, অনিয়ম, অভিযোগ, উৎকণ্ঠায় শেষ হলো দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। এর আগে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সকাল ৮টায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়ে চলবে বিকেল ৪টা পর্যন্ত।

পুরোনো নিয়মে আওয়ামী লীগ কেন্দ্র দখল করে ভোট ডাকাতির নির্বাচন করছে বলে মন্তব্য করেছে জাতীয় পার্টি৷ ভোট বর্জনের ডাক দেয়া বিএনপি বলেছে, কেন্দ্রে কম ভোটার উপস্থিতি প্রমাণ করেছে দেশের মানুষ আওয়ামী লীগ সরকারকে বর্জন করেছে৷ দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সারাদেশে ১৪০ ভোটকেন্দ্রে অনিয়মের ঘটনা ঘটেছে। তাছাড়া বিভিন্ন ঘটনায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে ৪২ জনকে।

বিদেশি সাংবাদিক ছাড়া ১২৭ জনেরও বেশি বিদেশি পর্যবেক্ষক নির্বাচন পর্যবেক্ষণ করছেন৷
বিদেশি সাংবাদিক ছাড়া ১২৭ জনেরও বেশি বিদেশি পর্যবেক্ষক নির্বাচন পর্যবেক্ষণ করছেন৷

প্রাণহানি, সহিংসতার মতো ঘটনার মধ্য দিয়ে শেষ হলো দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন৷ চলছে গণনা৷ শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট করতে পারা নিয়ে শঙ্কা জানিয়ে আসা প্রধান নির্বাচন কমিশনার বলেছেন, ভোটকেন্দ্রে নৌকার পোলিং এজেন্ট ছাড়া অন্য কারো এজেন্ট দেখতে পাননি তিনি৷

নৌকা ছাড়া অন্য এজেন্ট দেখতে পাননি সিইসি

রোববার সকালে রাজধানীর হাবীব উল্লাহ বাহার কলেজ কেন্দ্রে নিজের ভোট দেন সিইসি কাজী হাবিবুল আউয়াল৷ ভোট দিয়ে নির্বাচন ভবনে ফিরে আইনশৃঙ্খলাবিষয়ক কেন্দ্রীয় মনিটরিং সেল পরিদর্শন করেন সিইসি৷ পরে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন তিনি৷

ভোটকেন্দ্রে পোলিং এজেন্ট না থাকার কথা তুলে ধরে সিইসি বলেন, ‘আসলে মনে হচ্ছে, প্রতিদ্বন্দ্বী বা প্রতিপক্ষ প্রার্থী যারা, তাদের পোলিং এজেন্ট দেওয়ার সামর্থ্য নেই৷ …আমরা খুব জোর দিয়ে বলেছিলাম, প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক ভোট হতে হলে কেন্দ্রে অবশ্যই প্রত্যেক প্রার্থীর পোলিং এজেন্ট থাকতে হবে৷ আমি যেগুলো পেয়েছি, সবাই একই দলের৷ নৌকার পক্ষে বা ইয়ে.. পোলিংএজেন্ট৷ বাদবাকি প্রার্থীদের কোনো লোকজন দেখতে পাইনি৷”

দিনের শুরুতে ভোট দেয়া সিইসির কাছে জানতে চাওয়া হয়, হরতাল ও সহিংসতা ভোটারদের ওপর কতটা প্রভাব ফেলতে পারে৷ জবাবে তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশন শুধু ভোটটা ম্যানেজ করছে৷ ভোটাররা কীভাবে প্রতিক্রিয়া দেখাবেন, তা নিয়ে কোনো মন্তব্য করবেন না তিনি৷

Bangladesch | Parlamentswahl

ভোট ডাকাতির অভিযোগ জাতীয় পার্টির

আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধেভোটকেন্দ্র দখল ভোট ডাকাতির নির্বাচন করছে বলে অভিযোগ করেছেন করেছেন সংসদে প্রধান বিরোধী দল জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের৷

রোববার সকালে রংপুর-৩ আসনের সেনপাড়া শিশু মঙ্গল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্র ঘুরে দেখে তিনি এ কথা বলেন৷

জি এম কাদের বলেন, ‘‘জামালপুর-কুমিল্লাসহ বিভিন্ন জায়গায় আমাদের এজেন্টদের বের করে দেয়া হচ্ছে বলে খবর পেয়েছি৷ যে পুরোনো কায়দায় আওয়ামী লীগ ভোটকেন্দ্র দখল করে ভোট ডাকাতির নির্বাচন করে৷ এবারও সেটাই করা হচ্ছে৷ যদিও বারবার আশ্বস্ত করা হয়েছিল যে এমন কোনো ঘটনা ঘটবে না৷”

তিনি বলেন, ‘‘কিন্তু অলরেডি সকাল থেকে আমি তিনটা ঘটনা জেনেছি যে ভোট ডাকাতির নির্বাচনের প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে৷”

Bangladesch | Parlamentswahl

ভোটের স্বাভাবিক পরিবেশ নেই জানিয়ে তিনি আরো বলেন, ‘‘ভোট স্বাভাবিক হবে না, সেই ধরনের একটা আবহাওয়া তৈরি করা হচ্ছে৷ সব জায়গার খবর এখনও পাইনি৷ যে আশা করছিলাম ভোটটা স্বাভাবিক হবে, কিন্তু রংপুর ছাড়া বেশিরভাগ জায়গায় ভোট স্বাভাবিক হচ্ছে না৷”

জিএম কাদের বলেন, ‘‘সবসময় আমাদের আশঙ্কা ছিল যে, নির্বাচনে নিয়ে এসে আমাদের কোরবানি করা হবে৷ কোরবানি করে নির্ভেজাল, একদলীয় শাসন ব্যবস্থা কায়েম করা হবে৷ এসব আশঙ্কা সত্যি হয় কিনা বিকেল হলেই বোঝা যাবে৷”

দিনশেষে জাতীয় পার্টির শঙ্কা সত্যি হলে দলের অবস্থান কি হবে জানতে চাওয়া হয় জি এম কাদেররের কাছে৷ তিনি বলেন, ‘‘সেটা যখন হবে তখন বলব৷ আগে থেকে কিছু বলতে চাই না৷ আমরা সার্বিক পরিস্থিতি দেখে দলের নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেবো৷”

Bangladesch | Parlamentswahl

জনগণ বর্জন করেছে সাজানো নির্বাচন: বিএনপি

নির্বাচনের মধ্য দিয়ে দেশের জনগণ আওয়ামী লীগ সরকারকে বর্জন করার বিষয়টি প্রমাণিত হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আবদুল মঈন খান৷

জনগণের কাছে গ্রহণযোগ্য হলে নির্বাচন গ্রহণযোগ্য: শেখ হাসিনা

নির্দলীয়, নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে অনড় থাকায় ভোটে অংশ নেয়নি বিএনপি৷ বরং ভোটকে ব্যর্থকে তারা হরতালের ডাক দিয়েছে৷

রোববার দুপুরে গুলশানের নিজ বাসভবনে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে পর্যবেক্ষণ তুলে ধরেন বিএনপির এই জ্যেষ্ঠ নেতা৷ মঈন খান বলেন, ‘‘সরকারের সাজানো নির্বাচনের যে নাটক, আজকে সকাল থেকে সেই অংকের শেষ অংশ মঞ্চায়ন হচ্ছে৷ মজার কথা হচ্ছে এই যে, গত এক বছর ধরে আমরা যে কথাটি বলে আসছিলাম—বাংলাদেশের জনগণ এই সরকারকে বর্জন করেছে, সেই কথাটি আজকে নির্বাচন বর্জনের মধ্য দিয়ে জনগণ দেশে এবং বিদেশে সবার সামনে প্রমাণ করে দিয়েছে৷”Bangladesch | Parlamentswahl

তিনি বলেন, ‘‘সকালে ভোট যখন শুরু হয়, তার আগে বিভিন্ন ভোটকেন্দ্রের ছবি আমরা সংগ্রহ করেছি এ পর্যন্ত৷ ভোটকেন্দ্রগুলো যে ভোটারশূন্য কেবলমাত্র তাই নয়, আমাদের মনে পড়ছে আজকে থেকে ১০ বছর আগে ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির কথা৷ যেদিন আমরা দেখেছিলাম, ভোটকেন্দ্রে ভোটাররা ভোট দেয় না, কুকুর-বিড়াল ভোট দেয়৷”

সরকারের কঠোর সমালোচনা করে তিনি আরো বলেন, ‘‘আমরা অবাক বিস্ময়ে লক্ষ্য করলাম, গত ১০ বছরে সরকার গণতন্ত্রকে এমন পর্যায়ে নিয়ে গেছে যে, আজও শতশত কেন্দ্র শূন্য৷ এখানে কোনো ভোটার নেই৷ বিভিন্ন ভোটকেন্দ্রের সামনে আজকে শীতের সকালে কুকুর রোদ পোহাচ্ছে৷ এটাই বাংলাদেশের আজকের দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনের নামে যে প্রহসন, সেই প্রহসনের বাস্তবতা৷”

‘ভোটার উপস্থিতি নয়, পরিবেশ দেখছেন পর্যবেক্ষকেরা’

বেশি ভোটারের উপস্থিতি নির্বাচনের গ্রহণযোগ্যতা বাড়াতে অবদান রাখবে—এ কথা স্বীকার করেছেন পররাষ্ট্রসচিব মাসুদ বিন মোমেন৷ তবে তিনি বলেছেন, বিদেশি  পর্যবেক্ষকেরা ভোটারের উপস্থিতি নয়, বরং ভোট গ্রহণের স্বচ্ছতা ও নির্বাচনি পরিবেশ পর্যবেক্ষণ করছেন৷

রোববার সকালে টিচার্স ট্রেনিং সেন্টার কেন্দ্রে ভোট দেয়ার পর তিনি এসব কথা বলেন৷

পররাষ্ট্রসচিব জানান, বিদেশি পর্যবেক্ষকরা আজ সকাল থেকেই তাদের দায়িত্ব পালন করছেন৷ ভোটগ্রহণ শেষে তারা তাদের মতামত জানাতে সম্মত হয়েছেন৷Bangladesch | Parlamentswahl

বিদেশি সাংবাদিক ছাড়া ১২৭ জনেরও বেশি বিদেশি পর্যবেক্ষক নির্বাচন পর্যবেক্ষণ করছেন৷ পর্যবেক্ষকেরা জানিয়েছেন, নির্বাচনে ভোটারের উপস্থিতি নয়, বরং ভোটগ্রহণ প্রক্রিয়া স্বচ্ছ এবং পরিবেশ শান্তিপূর্ণ থাকছে কি না, তা পর্যবেক্ষণ করতে এসেছেন তারা৷

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রত্যাশা অনুযায়ী ভোটারের উপস্থিতি না থাকলে পশ্চিমা দেশগুলো বিষয়টি নিয়ে কি ভাবতে পারে, এমন প্রশ্নের জবাবে পররাষ্ট্রসচিব বলেন, ‘‘যদি প্রচুর ভোটার ভোট দেয়, তাহলে তা নির্বাচন ও এর গ্রহণযোগ্যতার পক্ষে যাবে৷”

Bangladesch | Parlamentswahl

ভোটের আগেই ব্যালটে নৌকার সিল

ভোট শুরুর আগেই নরসিংদী ৪ (মনোহরদী-বেলাব) আসনের একটি কেন্দ্রে ব্যালটের ১২টি বইয়ে নৌকা প্রতীকে সিল থাকায় অনিয়মের অভিযোগে ওই কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ বাতিল করা হয়েছে৷ এ ঘটনাকে ষড়যন্ত্র বলে দাবি করেছেন শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন৷

তার অভিযোগের আঙ্গুল অবশ্য স্বতন্ত্র প্রার্থীর দিকে৷ বলেছেন, তাকে ও নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করার জন্য স্বতন্ত্র প্রার্থী এই ঘটনা ঘটিয়েছেন৷

রোববার দুপুরে মনোহরদী এলাকায় তার বাসভবনের সামনে গণমাধ্যমকর্মীদের প্রশ্নের জবাবে শিল্পমন্ত্রী এসব কথা বলেন৷

তিনি বলেন, ‘‘আমার যে প্রতিপক্ষ, তারাও তো নৌকার লোকই৷ তারা সেখানে আওয়ামী লীগার সেজে সেগুলো করে আমাকে প্রশ্নবিদ্ধ এবং নির্বাচনটাকে প্রশ্নবিদ্ধ করার জন্য (ভোর) ৫টা-৬টার সময় এটাকে…যখন ব্যালট শুরুই হয় ৮টায়৷ তার আগে কীভাবে ঘটবে? কীভাবে নিলো? তারা ওখানে ম্যানেজ করে এই কাজটি করেছে অত্যন্ত সূক্ষ্মভাবে, যাতে প্রধানমন্ত্রী এবং আমাদের নির্বাচনকে আজকে প্রশ্নবিদ্ধ করা যায়৷”

তিনি আরো বলেন, ‘‘আজকে নৌকার নামধারী যারা, যারা কখনোই নৌকার ছিল না তারা এটি করেছে৷ অত্যন্ত খোলামেলাভাবে করেছে তারা৷ কারচুপি হয় তো তখন ব্যালট মারতে গেলে, ভোট কাটতে গেলে তখন৷ সে সময় কেউ তো ছিলই না৷ কাজেই হাস্যকর অভিযোগ এটা৷ কে কেটেছে তাকে দেখায়নি, শুধু ব্যালটগুলো দেখিয়েছে৷”

১৪ প্রার্থীর নির্বাচন বর্জন, পুনরায় ভোট গ্রহণের দাবি

সিলেট নগরের পাঠানটুলা এলাকায় দুটো কেন্দ্রের সামনে বিশৃঙ্খলা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। আজ রোববার বেলা ১১টায়
সিলেট নগরের পাঠানটুলা এলাকায় দুটো কেন্দ্রের সামনে বিশৃঙ্খলা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। আজ রোববার বেলা ১১টায়ছবি : সংগৃহীত

ভোটকেন্দ্রে অনিয়ম ও কারচুপির অভিযোগ তুলে ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন কয়েকজন প্রার্থী। নিজেদের এজেন্টদের মারধর করে কেন্দ্রে ঢুকতে না দেওয়ার অভিযোগ তুলে দেশের নয়টি স্থানে ১২ জন স্বতন্ত্র প্রার্থী, জাপা ও বিএনএমের একজন করে প্রার্থী ভোট থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন।

সিলেটে পাঁচজন, কুমিল্লায় দুজন, টাঙ্গাইল, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, যশোর, নারায়ণগঞ্জ ও কক্সবাজারের চকরিয়ায় একজন করে প্রার্থী আজ রোববার বেলা তিনটা পর্যন্ত নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দেন। এসব স্থানে তাঁরা পুনরায় ভোট গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন। নারায়ণগঞ্জ-১ আসনে ভোট দিয়ে তৃণমূলের তৈমুর আলম খন্দকার বলেছেন,‘নির্বাচনের কোনো পরিবেশ নেই।’

সিলেট: সিলেট-২ (বিশ্বনাথ ও ওসমানীনগর) আসনের বিভিন্ন ভোটকেন্দ্রে ব্যাপক অনিয়ম ও কারচুপি হচ্ছে জানিয়ে সাত প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর চারজনই নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন। আজ বেলা দুইটার দিকে ওসমানীনগর উপজেলার গোয়ালাবাজার এলাকায় একটি মিষ্টির দোকানে সংবাদ সম্মেলন করে এই ঘোষণা দেন তাঁরা। একে প্রহসনের নির্বাচন দাবি করে ওই চার প্রার্থী, এ আসনে পুনরায় ভোট গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন।

নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানো প্রার্থীরা হলেন গণফোরামের প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য মোকাব্বির খান (উদীয়মান সূর্য), স্বতন্ত্র প্রার্থী ও বিশ্বনাথ পৌরসভার মেয়র মুহিবুর রহমান (ট্রাক), জাতীয় পার্টির প্রার্থী ও সাবেক সংসদ সদস্য ইয়াহিয়া চৌধুরী এবং তৃণমূল বিএনপির মোহাম্মদ আবদুর রব (সোনালী আঁশ)। এই আসনের অন্য প্রার্থীরা হলেন আওয়ামী লীগের শফিকুর রহমান চৌধুরী (নৌকা), ন্যাশনাল পিপলস পার্টির মনোয়ার হোসাইন (আম) ও বাংলাদেশ কংগ্রেসের জহির (ডাব)।

চার প্রার্থীর অভিযোগের বিষয়ে সিলেটের রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক শেখ রাসেল হাসান প্রথম আলোকে বলেন, নির্বাচন সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হচ্ছে। কোথাও কোনো অনিয়মের অভিযোগ পাননি।

টাঙ্গাইল: টাঙ্গাইল–২ (গোপালপুর-ভূঞাপুর) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী (ঈগল) ইউনুছ ইসলাম তালুকদার ওরফে ঠান্ডু আজ বেলা দেড়টায় নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন। গোপালপুর উপজেলার ঝাওয়াইলে তাঁর নির্বাচনী কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ ঘোষণা দেন। ইউনুস ইসলাম তালুকদার অভিযোগ করেন, নৌকার কর্মীরা ঈগল প্রতীকের কর্মীদের বিভিন্ন স্থানে মারধর করেছেন। ঈগলের এজেন্টদের কেন্দ্রে প্রবেশ করতে দেওয়া হয়নি। প্রশাসনকে অভিযোগ দিয়েও কোনো প্রতিকার পাননি। তাই নির্বাচন বর্জন করলেন।

ভোট বর্জন প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের প্রার্থী বর্তমান সংসদ সদস্য তানভীর হাসান ওরফে ছোট মনির বলেন, নিশ্চিত পরাজয় জেনে ইউনুস ইসলাম মিথ্যা অভিযোগ এনে ভোট বর্জন করেছেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া: প্রায় প্রতিটি ভোটকেন্দ্রে নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর দলীয় নেতা–কর্মীরা জোর করে কেন্দ্র দখল করে কাঁচি প্রতীকের এজেন্টদের বের করে দিয়ে নৌকা প্রতীকের ব্যালটে সিল মারছেন, এমন অভিযোগ তুলে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ (সদর ও বিজয়নগর) আসনে ভোট গ্রহণ স্থগিতের আবেদন করেছেন কাঁচি প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী ফিরোজুর রহমানের প্রধান নির্বাচনী এজেন্ট। আজ দুপুরে রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসকের কাছে লিখিত আবেদন জমা দেন তিনি।

রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান বলেন, ‘একটা অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি তদন্তের জন্য পুলিশ সুপারকে সঙ্গে নিয়ে সরেজমিনে জেলা শহরের কেন্দ্রগুলো ঘুরে দেখছি। নির্বিঘ্নে ভোট হচ্ছে। তবে ভোটার উপস্থিতি একটু কম।’

কুমিল্লা: ব্যালট পেপারে আগাম সিল মারা, জাল ভোট, এজেন্টদের বের করে দেওয়ার অভিযোগে কুমিল্লা-৭ (চান্দিনা) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ঈগল প্রতীকের মুনতাকিম আশরাফ ও কুমিল্লা-১১ (চৌদ্দগ্রাম) আসনের স্বতন্ত্র্র প্রার্থী ফুলকপি প্রতীকের মো. মিজানুর রহমান নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন। একই সঙ্গে তাঁরা নির্বাচন স্থগিত করে পুনঃ নির্বাচনের দাবি জানিয়েছেন। আজ দুপুরে রিটার্নিং কর্মকর্তা ও কুমিল্লা জেলা প্রশাসক খন্দকার মু. মুশফিকুর রহমানের কাছে তাঁরা লিখিত অভিযোগ করেন।

যশোর: নির্বাচনকে ভোটারবিহীন ও প্রশ্নবিদ্ধ আখ্যা দিয়ে যশোর-১ (শার্শা) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী আশরাফুল আলম ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন। আজ নির্বাচন শুরুর দুই ঘণ্টা পর আশরাফুল আলম তাঁর বেনাপোলের বাসভবনের সামনে সাংবাদিকদের ব্রিফিং করে নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দেন।

ভোট দেয়া শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছেন তৈমুর আলম। সকালে রূপসী নিউ মডেল উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ মাঠে
ভোট দেয়া শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছেন তৈমুর আলম। সকালে রূপসী নিউ মডেল উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ মাঠে আশরাফুল আলম বলেন, ‘এই নির্বাচনের মাধ্যমে আওয়ামী লীগের বিরাট একটি জনগোষ্ঠী, নেতা-কর্মীদের আঘাত ও অপমান এবং ভোটারদের অসম্মান আমার কাছে যৌক্তিক মনে হয়নি।’

জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের প্রার্থী শেখ আফিল উদ্দীন বলেন, স্বতন্ত্র প্রার্থী আশরাফুল আলমের কোনো কর্মী-সমর্থক নেই। কোনো কেন্দ্রে পোলিং এজেন্ট দিতে পারেননি। তিনি যেসব অভিযোগ করেছেন, তা ডাহা মিথ্যা।

নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ-২ (আড়াইহাজার) আসনে নৌকা প্রতীকে প্রকাশ্যে ভোট দেওয়ার অভিযোগকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম ওরফে বাবুর সমর্থকদের সঙ্গে জাতীয় পার্টি–মনোনীত প্রার্থী আলমগীর সিকদারের সমর্থকদের সংঘর্ষ হয়েছে। এ সময় পুলিশের ছোড়া ছররা গুলিতে দুজন বিদ্ধ হয়েছেন।

আজ সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার রামচন্দ্রদী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে সংঘর্ষের এ ঘটনা ঘটে। পরে বেলা ১১টায় আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলন করে ভোট বর্জনের ঘোষণা দেন আলমগীর সিকদার। সংঘর্ষে আহত দুজনের নাম-পরিচয় জানা যায়নি। সংঘর্ষের পর ওই বিদ্যালয়ের নারী ও পুরুষ কেন্দ্র দুটির ভোট গ্রহণ বাতিল করে দেওয়া হয়েছে।

নির্বাচনের কোনো পরিবেশ নেই বলে অভিযোগ করেছেন নারায়ণগঞ্জ-১ (রূপগঞ্জ) আসনের তৃণমূল বিএনপির প্রার্থী তৈমুর আলম খন্দকার। আজ সকালে নারায়ণগঞ্জের রূপসী নিউ মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজ ভোটকেন্দ্রে ভোট দিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ মন্তব্য করেন তিনি। তৃণমূল বিএনপির মহাসচিব তৈমুর আলম বলেন, ‘সকাল থেকে আমার এজেন্টদের বাধা দেওয়া হচ্ছে। আমার লোকজনের ওপর হামলা করা হচ্ছে। কঠিন অবস্থার মধ্য দিয়ে নির্বাচন করতে হচ্ছে। চনপাড়া আর মৈকুলীতে আমার কোনো এজেন্ট নেই। নির্বাচনের কোনো পরিবেশ নেই।’

নারায়ণগঞ্জের রিটার্নিং কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাহমুদুল হাসান প্রথম আলোকে বলেন, কোনো ভোটার এখন পর্যন্ত পরিবেশ নিয়ে অভিযোগ করেননি।

চকরিয়া (কক্সবাজার): কক্সবাজার-১ (চকরিয়া–পেকুয়া) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য জাফর আলম ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন। আজ বেলা তিনটার দিকে জাফর আলমের নিজের ফেসবুক পেজে তিনি ভোট বর্জনের ঘোষণা দেন। এ সময় তিনি বলেন, ‘অধিকাংশ কেন্দ্র দখল করে ভোট ডাকাতি ও আমার এজেন্টদের মারধর করে কেন্দ্র থেকে বের করে দেওয়ার প্রতিবাদে আমি ভোট বর্জন করলাম।’
জাফর আলম এই আসনের আওয়ামী লীগের বর্তমান সংসদ সদস্য। দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে দলের মনোনয়নবঞ্চিত হয়ে তিনি স্বতন্ত্র প্রার্থী হন। এই আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন দেওয়া হয়েছিল কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সালাহউদ্দিন আহমদকে। তবে ঋণখেলাপীর অভিযোগে তাঁর মনোনয়ন বাতিল করেন নির্বাচন কমিশন ও উচ্চ আদালত। পরে কল্যাণ পার্টির প্রার্থী সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিমকে জেলা আওয়ামী লীগ সমর্থন দেয়।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ: চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ (সদর) আসনে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী আন্দোলনের (বিএনএম) প্রার্থী আব্দুল মতিন ভোট বর্জন করেছেন। আজ বেলা পৌনে একটায় ফেসবুক লাইভে এসে তিনি এ ঘোষণা দেন। লাইভে তিনি বলেন, বেশ কয়েকটি সেন্টার থেকে আমার এজেন্টদের হুমকি দেওয়া হয়েছে এবং বের করে দেওয়া হয়েছে।

কারচুপির অভিযোগ এনে ভোটগ্রহণ স্থগিত চেয়ে পুনরায় নির্বাচনের দাবি স্বতন্ত্র প্রার্থীর। আজ রোববার দুপুরে জামালপুর শহরের তমালতলা এলাকা থেকে তোলা ছবি
কারচুপির অভিযোগ এনে ভোটগ্রহণ স্থগিত চেয়ে পুনরায় নির্বাচনের দাবি স্বতন্ত্র প্রার্থীর। আজ রোববার দুপুরে জামালপুর শহরের তমালতলা এলাকা থেকে তোলা ছবিপ্রথম আলো

এ আসনে নৌকার প্রার্থী আবদুল ওদুদের প্রধান নির্বাচনি এজেন্ট গোলাম শাহনেওয়াজ প্রথম আলোকে বলেন, সবগুলো কেন্দ্রে তাঁর (আবদুল মতিন) এজেন্ট দেওয়ার সামর্থ্যই ছিল না। নিশ্চিত ভরাডুবি দেখে তিনি এ মিথ্যাচার করছেন।

জামালপুর: জামালপুর-৫ (সদর) আসনে ভোট কারচুপির অভিযোগ এনে ভোট গ্রহণ স্থগিত চেয়ে পুনরায় নির্বাচনের দাবি করেছেন ঈগল প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী মো.রেজাউল করিম। আজ বেলা আড়াইটার দিকে শহরের তমালতলা এলাকায় তাঁর ব্যক্তিগত কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে এই ঘোষণা দেন তিনি।
এই আসনের নৌকা মার্কার প্রার্থী মো.আবুল কালাম আজাদ বলেন,‘সকাল থেকে শান্তিপূর্ণ গ্রহণ হচ্ছে। কোথাও কোন সমস্যা হয়নি।’

জামালপুরের জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো.শফিউর রহমান প্রথম আলোকে বলেন,‘সকাল থেকেই শান্তিপূর্ণ ভোটগ্রহণ চলছে। একটি কেন্দ্রে সমস্যা হয়েছিল। সেই কেন্দ্রের ভোট গ্রহণ আমরা স্থগিত করে দিয়েছি।’

দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলার মুকুন্দপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে ভোট গণনার আগেই ফলাফল শিটে এজেন্টদের স্বাক্ষর নিয়েছেন প্রিসাইডিং কর্মকর্তা
দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলার মুকুন্দপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে ভোট গণনার আগেই ফলাফল শিটে এজেন্টদের স্বাক্ষর নিয়েছেন প্রিসাইডিং কর্মকর্তাছবি: প্রথম আলো

দিনাজপুরের বিরামপুরে ভোট গণনার আগেই আজ রোববার দুপুর ১২টার দিকে পোলিং এজেন্টদের কাছ থেকে রেজাল্ট শিটে সই করিয়ে নিয়েছেন দায়িত্বরত প্রিসাইডিং কর্মকর্তা। উপজেলার মুকুন্দপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় প্রার্থীদের কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে।

আজ দুপুর ১২টার দিকে মুকুন্দপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভোটকেন্দ্রের প্রিসাইডিং কর্মকর্তা মো. খায়রুল আলম তিন প্রার্থীর ২০ জন পোলিং এজেন্টের কাছ থেকে ফলাফল শিটে সই নেন। বিকেলে ভোট গণনার সময় অনেক চাপ থাকে বলে আগেই সই নিয়ে রেখেছেন দাবি করেন ওই কর্মকর্তা। তিনি বিরামপুর সরকারি কলেজের বাংলা বিভাগের প্রভাষক হিসেবে কর্মরত।

স্বতন্ত্র প্রার্থী আজিজুল হক চৌধুরীর (ট্রাক) এজেন্ট মইনুল ইসলাম প্রথম আলোকে বলেন, ‘দুপুরে প্রিসাইডিং কর্মকর্তা আমাদের কক্ষে এসে আমাকে বলেন, “এখানে সই করেন।” তখন আমরা কক্ষের তিনজন এজেন্ট ওই কাগজে সই করি। আমরা মনে করেছিলাম, কাগজটি হাজিরা শিট। সই দেওয়ার পর জানতে পারি, সেগুলো ব্যালট পেপারের হিসাব শিট ও ভোট গণনার ফলাফল শিট।’

নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর এজেন্ট আবু জোবায়ের প্রথম আলোকে বলেন, ‘আমাকে ভোটকেন্দ্রে হাজিরা দেওয়ার কথা বলে প্রিসাইডিং কর্মকর্তা সই নিয়েছেন।’

প্রিসাইডিং কর্মকর্তা মো. খায়রুল আলম
প্রিসাইডিং কর্মকর্তা মো. খায়রুল আলমছবি: প্রথম আলো

প্রিসাইডিং কর্মকর্তা মো. খায়রুল আলম প্রথম আলোকে বলেন, ‘এটা থাক না। পরে গ্যাঞ্জাম হয়। সবাই থাকে না। তাই আগে সই নিয়ে রেখেছি। আমিও সই করেছি। ট্রাক ও নৌকার উভয় এজেন্টের কাছ থেকেই সই নিয়েছি।’ বিষয়টি আচরণবিধি লঙ্ঘনের মধ্যে পড়ে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমি ওইভাবে খেয়াল করিনি।’

সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা ও বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নুজহাত তাসনীম প্রথম আলোকে বলেন, ‘না, না। ফলাফল শিটে সই নেয়নি। এ তথ্য ভুল। আমরা যাচাই করছি। ফলাফল শিটে সই কেন নেবে? ফলাফল কী হয়ে গেছে যে সই নেবে? বিষয়টি দেখার জন্য আমি উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তাকে ওই কেন্দ্রে পাঠাচ্ছি।’

মুকুন্দপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে মোট ভোটার ৩ হাজার ৫৬৯। পুরুষ ভোটার ১ হাজার ৭৯৩ জন এবং নারী ভোটার ১ হাজার ৭৭৬ জন। কেন্দ্রটিতে তিন প্রার্থীর ২০ জন পোলিং এজেন্টের দায়িত্ব পালন করছেন।

[ প্রথম আলোর প্রতিবেদন তৈরিতে সহায়তা করেছেন সংশ্লিষ্ট এলাকার নিজস্ব প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিরা]

পূর্বের খবরবিপুল ভোটে জিতলেন জিএম কাদের
পরবর্তি খবরচতুর্থবারের মত জিতলেন হাছান মাহমুদ